মোবাইল অপারেটর অদল-বদল শুরু

আকাশ২৪ ডেস্কঃ আজ সোমবার পরীক্ষামূলকভাবে চালু হয়েছে মোবাইল নম্বর পোর্টেবিলিটি (এমএনপি) সেবা। আজ (সোমবার) থেকে গ্রাহকেরা নম্বর ঠিক রেখে মোবাইল অপারেটর পরিবর্তন করতে পারবেন।
পূর্বের নির্দেশনানুযায়ী, ৭২ ঘণ্টার মধ্যে নতুন সিমটি চালু হলে পরবর্তী ৯০ দিনের মধ্যে আর অপারেটর পরিবর্তন করা যাবে না। তবে এই নির্দিষ্ট দিনের পর গ্রাহক আবার অপারেটর বদলাতে পারবেন।
এই সেবা পেতে গ্রাহককে জাতীয় পরিচয়পত্র নিয়ে সংশ্লিষ্ট মোবাইল অপারেটরের কাস্টমার কেয়ার বা সেবা কেন্দ্রে যেতে হবে।
একবার অপারেটর বদলাতে ফি দিতে হবে ৫০ টাকা। এর ওপর ১৫ শতাংশ মূল্য সংযোজন কর বা ভ্যাট আছে। এতে ফি দাঁড়াবে ৫৭ টাকা ৫০ পয়সা।
প্রতিবার অপারেটর বদলাতে গ্রাহককে নতুন সিম নিতে হবে। সিম পরিবর্তন বা রিপ্লেসমেন্টের ওপরে ১০০ টাকা কর আছে। সব মিলিয়ে গ্রাহককে সিম প্রতি ফি দিতে হবে ১৫৮ টাকা।

গ্রামীণফোনের চিফ করপোরেট অফিসার মাহমুদ হোসেন জানান, গ্রাহকেরা এ নেটওয়ার্কে এলে তাদের অর্থের সবচেয়ে বেশি উপযোগিতা পাবেন। গ্রাহকেরা গ্রামীণফোনের ওপর তাদের আস্থা অব্যাহত রাখবে এ আত্মবিশ্বাস আমাদের আছে।

এদিকে দ্বিতীয় শীর্ষ অপারেটর রবি আজিয়াটা এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, তাদের গড়া দেশের বৃহত্তম ৪ দশমিক ৫ জি নেটওয়ার্কে গ্রাহককে স্বাগত জানানোর সুযোগ পেয়ে তারা আনন্দিত। তাদের গ্রাহক হলে যেকোনো অপারেটরে ৫০ পয়সা মিনিট রেটে কথা বলা যাবে।

অপারেটর পরিবর্তনে গ্রাহকদের সহযোগিতা দিতে ইতিমধ্যে টিকিটিং পদ্ধতির হেল্পডেস্ক চালু করেছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। পাশাপাশি ওয়েবসাইটে (িি.িরহভড়ঃবষবনফ.পড়স) প্রয়োজনীয় তথ্য ও অ্যানিমেশন যুক্ত করা হয়েছে। এ ছাড়া ই-মেইলের মাধ্যমেও গ্রাহকরা যোগাযোগ করতে পারবেন।

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + four =